লকডাউন না মানলে প্রয়োজনে রাস্তায় দেখলেই গুলি, হুঁশিয়ারি কেসিআরের

     

সরকারি নিষেধাজ্ঞা সত্ত্বেও লকডাউন উপেক্ষা করে মানুষের বাইরে বেরনোর প্রবণতা কমছে না। তার জেরে এ বার কড়া পদক্ষেপের হুঁশিয়ারি দিলেন তেলঙ্গানার মুখ্যমন্ত্রী কে চন্দ্রশেখর রাও। জানিয়ে দিলেন, বাইরে বেরনোর প্রবণতা না কমলে রাজ্যে সম্পূর্ণ কার্ফু জারি করা হবে। এমনকি প্রয়োজনে রাস্তায় দেখলে গুলি করার নির্দেশও দিতে পারে তাঁর সরকার।

তেলঙ্গানায় করোনা আক্রান্তের সংখ্যা ৪০ ছুঁইছুঁই। পর্যবেক্ষণে রাখা হয়েছে ১৯ হাজার মানুষকে। রাজ্যে চলছে লকডাউন। তা সত্ত্বেও রাস্তাঘাটে মানুষের আনাগোনা চলছেই। তাতেই মঙ্গলবার রাজ্যবাসীর উদ্দেশে বার্তা দেন কেসিআর। তিনি বলেন, ‘‘লকডাউন কার্যকর করতে আমেরিকায় সেনা নামাতে হয়েছে। করোনা পরিস্থিতিতে মানুষ লকডাউন না মানলে, এখানেও তেমন পরিস্থিতি তৈরি হতে পারে। ২৪ ঘণ্টা কার্ফু জারির পাশাপাশি দেখলেই গুলি করার নির্দেশ দিতে পারি আমরা। তাই আপনাদের কাছে অনুরোধ, দয়া করে এমন পদক্ষেপ করতে বাধ্য করবেন না।’’

এই মুহূর্তে তেলঙ্গানায় সন্ধ্যা ৭টা থেকে সকাল ৬টা পর্যন্ত কার্ফু জারি রয়েছে। সন্ধ্যা ৬টার মধ্য সমস্ত দোকানপাট বন্ধ করে দিতে বলা হয়েছে। সরকারি নির্দেশ যাতে কার্যকর হয় তার জন্য রাজ্যের সমস্ত মন্ত্রী, বিধায়ক এবং ব্যবসায়ী মহলকে পুলিশের সঙ্গে সহযোগিতা করার নির্দেশ দিয়েছেন কেসিআর। এই সময়ে জিনসপত্রে যাতে চড়া দামে বিক্রি না হয়, সে দিকেও নজর রাখতে বলা হয়েছে। যাঁরা গৃহ পর্যবেক্ষণে রয়েছেন, তাঁদের পাসপোর্ট বাজেয়াপ্ত করতে নির্দেশ দিয়েছেন তিনি। গৃহ পর্যবেক্ষণে থেকে নির্দেশ লঙ্ঘন করলে পাসপোর্ট সাসপেন্ড করা হতে পারে বলে বলে জানিয়েছেন তেলঙ্গানার মুখ্যমন্ত্রী।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Close